ট্রেনে আজ উপচে পড়া ভিড়

আজ শুক্রবার (২১ এপ্রিল) ট্রেনে ঈদযাত্রার শেষ দিন। ঘরে ফেরার শেষ চেষ্টায় মানুষ। যে যেভাবে পারছেন নাড়ির টানে বাড়ি ফিরছেন। আজ সকালে রাজধানীর কমলাপুর রেল স্টেশনে দেখ গেছে, মানুষের চাপে ভেঙে পড়েছে স্টেশনের কঠোর ব্যবস্থাপনা।
সব বাধা উপেক্ষা করে ট্রেনের ভেতরে দাঁড়ানোর জায়গা না পেয়ে শেষ পর্যন্ত ছাদে উঠে যাচ্ছেন ঘরমুখো মানুষ। বিশেষ করে উত্তরবঙ্গের ট্রেনগুলোতে বেশি চাপ।

 

জীবনের ঝুঁকি থাকলেও ঘরে ফেরার টানে মানুষ বেছে নিচ্ছে অনিরাপদ যাত্রা। রাজধানীর কমলাপুর স্টেশন থেকে প্রতিটি ট্রেন যাত্রী বোঝায় করে গন্তব্য রওনা হচ্ছে।

নীলসাগর, মহানগর প্রভাতীসহ বেশ কিছু ট্রেন নির্ধারিত সময় থেকে দেরিতে ছাড়তে দেখা যায়। শেষ দিনে আন্তঃনগর ও লোকাল মিলে মোট ৫৫ জোড়া ট্রেন দেশের বিভিন্ন গন্তব্যের উদ্দেশে চলাচল করবে।

 

এছাড়া কয়েক জোড়া স্পেশাল ট্রেনের ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। ঈদের দিনেও চলবে বিশেষ ট্রেন।

 

গত সোমবার (১৭ এপ্রিল) সকাল থেকে ট্রেনে ঈদযাত্রা শুরু হয়েছে। কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন থেকে ধূমকেতু এক্সপ্রেসের মাধ্যমে এ যাত্রা শুরু হয়। প্রথম দিন থেকে ঝক্কি-ঝামেলা ছাড়াই যাত্রা করতে পেরে স্বস্তি প্রকাশ করেন ঘর মুখো মানুষ।

 

যাত্রীরা জানান, অনলাইন মাধ্যমে টিকিট কাটায় ভোগান্তিতে পড়তে হয়নি। এর আগের বছরে ২৪ ঘণ্টার অপেক্ষার পরও টিকিট না পাওয়ার অভিযোগ ছিল, এবার সেটা নেই। যাত্রী ঘরে বসেই অনলাইন মাধ্যমে টিকিট কিনতে পেড়েছেন। কারণ শতভাগ আসনে এবার অনলাইন মাধ্যমে টিকিট বিক্রি করা হয়েছে।