বাগমারার রামরামা গ্রামে রাতে পুকুর খননের মাটি বহণের ট্রাক্টর চাপায় ‘ ভ্যান চালক ‘ নিহত

আশরাফুল ইসলাম ফরাশী বাগমারা প্রতিনিধিঃ রাজশাহীর বাগমারায় রাতে পুকুর খননের মাটি বহণের ট্রাক্টর চাপায় ফজলুর রহমান (৫২) নামের এক ভ্যান চালক নিহত হয়েছে। বুধবার রাত সাড়ে ৮ টার দিকে ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার গোয়ালকান্দি ইউনিয়নের রামরামা প্রেমতলী এলাকায়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করেছে। পরে ময়না তদন্তের জন্য নিহত ফজলুর রহমানের লাশ থানায় নেয়া হয়েছে। নিহত ফজলুর রহমানের বাড়ি সাজুড়িয়া গ্রামে।
পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, প্রায় এক সপ্তাহ থেকে  রাতের আঁধারে প্রেমতলী মোড়ের পাশেই রামরামা গ্রামের ইয়াচিন আলী প্রশাসনের চোখ ফাঁকি দিয়ে পুকুর খনন করে আসছিল। অতি লাভের আশায় পুকুর খননের মাটি পাশের সোবহানের ইট ভাটায় বিক্রয় করে আসছিল। প্রতিদিনের ন্যায় বুধবার রাতে পুকুর খনন শুরু করে। পুকুরের সেই মাটি ইট ভাটায় বিক্রয় শুরু করে। রামরামা গ্রামের ট্রাক্টর চালক মাটি নিয়ে সোবহানের ইট ভাটায় যাওয়ার পথে প্রেমতলী মোড়ে একই দিক থেকে যাওয়া ভ্যানকে চাপা দেয়। এ সময় ঘটনাস্থলে ভ্যান চালক ফজলুর রহমান নিহত হয়। এদিকে ভ্যান চালককে চাপা দিয়ে ট্রাক্টর রেখে পালিয়ে যায় চালক মুনছের আলী মৃধা।  ওই চালকের বাড়িও রামরামা গ্রামে। ট্রাক্টরের চালক পালিয়ে যাওয়ায় তাকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, স্থানীয় প্রশাসনের পক্ষ থেকে পুকুর খননে নিষেধাজ্ঞা থাকলেও সেটার তোয়াক্কা না করে দিব্যি রাতের অন্ধকারে  প্রশাসনের চোখ ফাকিঁ দিয়ে গোপনে পুকুর খনন করে আসছিল পুকুর মালিক ইয়াচিন আলী। আর মাটির দাম বেশি হওয়ায় তা বিভিন্ন ইট ভাটায় বিক্রি করছে। রাতে পুকুর খনন করে মাটি বিক্রির দৃশ্য উপজেলার সর্বত্র। স্থানীয়রা জানান, রাতে   প্রশাসনের পক্ষ থেকে অভিযান পরিচালনা না করায় বেপরোয়া হয়ে উঠেছে এক শ্রেণীর অসাধু ও অবৈধ ভাবে পুকুর খনন চক্র। ক্ষমতার জোর দেখিয়ে তারা অবৈধ ভাবে পুকুর খনন কাজ চালিয়ে থাকে। পরিবারের উপার্জনক্ষম এক মাত্র অসহায় ব্যক্তির মৃত্যুতে  এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। রাতে গোপনে পুকুর খনন করতে গিয়ে মৃত্যুর ঘটনা এটাই প্রথম না। এর আগেও অনেক নিহতের ঘটনা ঘটেছে।
এ ব্যাপারে বাগমারা থানায় একটি হত্যা মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছে তাহেরপুর পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ ও ঘটনার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই জিলালুর রহমান।  তিনি  আরো বলেন, ভ্যান চালককে চাপা দেয়ার ঘটনায় ট্রাক্টর জব্দ করা হয়েছে। তবে  চালক পালিয়ে যাওয়ায় ধরা সম্ভব হয়ে উঠেনি। চালককে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।
এদিকে এ ঘটনায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এ,এফ,এম আবু সুফিয়ান বলেন, প্রশাসনের চোখ ফাঁকি দিয়ে রাতের – আধারে পুকুর খনন করতে গিয়ে এক অসহায়  ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে  বলে জানতে পেরেছি। প্রশাসনের অনুমতি ব্যতীত কেন তারা পুকুর খননের মাটি বিক্রয় করছে সেটা আমার জানা নেই। প্রশাসনের পক্ষ থেকে গোপনে পুকুর খননকারীর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।