তাড়াশে ছাত্রীকে উত্যক্ত করায় শিক্ষকের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ-সমাবেশ

শিক্ষক কর্তৃক ছাত্রীকে উত্যক্ত করার প্রতিবাদে সিরাজগঞ্জের তাড়াশে মাদ্রাসার শিক্ষককের বিরুদ্ধে ওই মাদ্রাসার ছাত্রছাত্রীরা মঙ্গলবার (৫ জুন) মাদ্রাসা চত্বরে বিক্ষোভ মিছিল ও ক্লাস বর্জন করেছে। বিচার না হওয়া পর্যন্ত ক্লাস বর্জন অব্যাহত থাকবে বলে আনন্দোলনরত ছাত্রছাত্রী জানিয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার তালম ইউনিয়ন গোন্তা মাদ্রাসা ক্যাম্পাসে।

জানাগেছে, উপজেলার তালম ইউনিয়নের গোন্তা আলীম মাদ্রাসার সহকারী শিক্ষক আজাহার আলীর অষ্টম শ্রেণীর এক ছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করত। এ ব্যাপারে ওই ছাত্রীর বাবা আব্দুল মান্নান বাদী হয়ে গোন্তা আলীম মাদ্রাসার সহকারী শিক্ষক আজাহার আলীর বিরুদ্ধে তাড়াশ উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছেন।

ওই ছাত্রীর বাবা জানান, প্রায় গোন্তা আলীম মাদ্রাসা সহকারী শিক্ষক আজাহার আলী আমার অষ্টম শ্রেণিতে পড়ুয়া মেয়েকে বিভিন্ন সময় কু প্রস্তাব সহ নানা ভাবে উত্ত্যক্ত করত। তাছাড়া তিনি (আজাহার আলী) গোপনে মাদ্রাসার অধ্যক্ষের স্বাক্ষর জাল করে আমার মেয়ের বয়স বাড়ানোর চেষ্টা করেছেন।

তিনি আরো বলেন, পারিবারিকভাবে বিয়ে জন্য কোথাও থেকে প্রস্তাব আসলে ওই শিক্ষক বিভিন্ন কথাবার্তা বলে বিয়ে ভেঙ্গে দিয়েছে।

গোন্তা আলীম মাদ্রাসার অধ্যক্ষ আব্দুল মান্নান জানান, মাদ্রাসার সহকারী শিক্ষক আজাহার আলীর বিরুদ্ধে ছাত্রীকে উত্যক্তের প্রতিবাদে ছাত্রছাত্রী ক্লাস বর্জন করে বিক্ষোভ সমাবেশ করছেন। এবিষয়ে মাদ্রাসার গর্ভনিং বডির সদস্যদের নিয়ে মিটিং করে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

তাড়াশ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মেজবাউল করিম জানান, এ বিষয়ে একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। তদন্তপুর্বক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। এবাপারে তাড়াশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মোঃ শহিদুল ইসলাম জানান, অভিযোগ পেয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।