দুর্গম পাহাড়ে পথ হারানো সেই ৬ পর্যটক উদ্ধার

চট্টগ্রামের মিরসরাই উপজেলার খৈয়াছড়া ইউনিয়নের খৈয়াছড়া ঝরনা দেখতে এসে দুর্গম পাহাড়ে পথ হারিয়ে নিখোঁজ হন ছয়জন পর্যটক। জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯ নম্বরে ফোন পেয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার পাহাড়ে ২ ঘণ্টা অভিযান চালায় পুলিশ। পরে রাত সাড়ে ৯টায় তাদের উদ্ধার করা হয়।

এর আগে বৃহস্পতিবার দুপুর আড়াইটার দিকে ঢাকা থেকে ছয় বন্ধু মিলে মিরসরাইয়ের বড়তাকিয়া এসে পৌঁছেন। পরে বাস থেকে নেমে সিএনজি অটোরিকশায় করে তারা খৈয়াছড়া ঝরনা দেখতে যান।উদ্ধার হওয়া পর্যটকরা হলেন- ঢাকা জেলার মিরপুর শেওরাপাড়া এলাকার মোতালেব হোসেনের ছেলে মো. আল আমিন (১৮), আমির হোসেনের ছেলে মুকিদ আহম্মদ শুভ্র (১৭), আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে ওমর ফারুক (১৮), মহিউদ্দিন দেওয়ানের ছেলে নাঈম আহম্মদ তামিম (২০), পশ্চিম শেওরাপাড়া এলাকার মো. তোফাজ্জেল হোসেনের ছেলে তানভীর হাসান (২০), মো. শামছুদ্দিন বেপাড়ীর ছেলে আনিছুর রহমান অনিক (১৮)।দুর্গম পাহাড়ে পথ হারানো সেই ৬ পর্যটককে উদ্ধার করেছে পুলিশ

পর্যটকরা জানান, সন্ধ্যা ৬টা ৪৫ মিনিটে পাহাড়ের চূড়া থেকে নামার সময় অন্ধকার হয়ে যায়। এ সময় পাহাড়ের আঁকাবাঁকা পথ ভুলে দিক হারিয়ে ফোন দেন জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯ নম্বরে। খবর পেয়ে মিরসরাই থানা পুলিশ প্রায় ২ ঘণ্টাব্যাপী পাহাড়ে অভিযান চালিয়ে রাত সাড়ে ৯টায় তাদের উদ্ধার করেন।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে মিরসরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কবির হোসেন বলেন, ‌‘ছয় পর্যটক দুপুর আড়াইটার দিকে ঝরনায় গিয়ে পাহাড়ের চূড়ায় উঠেন। ফেরার সময় নামতে নামতে সন্ধ্যা হয়ে গেলে আর পথ খুঁজে পান না। আমরা তাদের উদ্ধার করে বাসে তুলে দিয়েছি। তারা সুস্থ রয়েছেন।

আমাদের সময়